mozilla
আপনার অনুসন্ধান ফলাফল

    অ্যাপ ম্যানেজার ব্যবহার করা

    অ্যাপ ম্যানেজার হল ফায়ারফক্সের ডেস্কটপ সংস্করণের জন্য একটি নতুন টুল, যা সরাসরি ব্রাউজার থেকেই আপনার ফায়ারফক্স ওএস ফোন কিংবা ফায়ারফক্স ওএস সিম্যুলেটরে HTML5 ওপেন ওয়েব অ্যাপ পরীক্ষা, ডেপ্লয় এবং ভুল বের করতে সাহায্য করবে অনেকগুলো সাহায্যকারী টুলসের মাধ্যমে

    এই অ্যাপ ম্যানেজারটি যেসব ডেভেলপার ১.২ বা পরের সংস্করণের জন্য অ্যাপ বানাতে চান তাদের জন্যই। আপনি যদি ১.১ সংস্করণের জন্য অ্যাপ বানাতে চান তাহলে ফায়ারফক্স ওএস ১.১ সিমুলেটর দেখুন।

    অ্যাপ ম্যানেজারটি যেসব অংশ থাকেঃ

    • একটি অ্যাপস প্যানেল, যা লোকাল অ্যাপ (যে সকল অ্যাপের সোর্সকোড আপনার কম্পিউটারে আছে) এবং বাইরে হোস্ট করা অ্যাপকে প্যাকেজ করে আপনার ডিভাইস কিংবা সিম্যুলেটরে ইন্সটল করতে সাহায্য করে এবং বিভিন্ন টুলের সাহায্য ভুল সংশোধন বা ডিবাগ করতে সাহায্য করে।
    • একটি ডিভাইস প্যানেল, যা কম্পিউটারের সঙ্গে সংযুক্ত ফায়ারফক্স ওএস ডিভাইস সংক্রান্ত বিবিধ তথ্যাদি, ফায়ারফক্স ওএস সংস্করণ, ডিভাইসটির বিভিন্ন ডিভাইস API ব্যবহারের জন্য বিবিধ পার্মিশন বা অনুমতি এবং ইন্সটল করা অ্যাপের তালিকা ইত্যাদি প্রদর্শন করে।
    • টুলবক্স, যা একটি ডেভেলপার টুলের সংকলন (ওয়েব কনসোল, ইন্সপেক্টর, ডিবাগার ইত্যাদি) যেগুলো অ্যাপস প্যানেলের মাধ্যমে ডিভাইস বা সিম্যুলেটরে চালু কোন অ্যাপের সঙ্গে সংযুক্ত হয়ে বিবিধ রকমের ডিবাগিং সংক্রান্ত কাজ করতে সাহায্য করে।

    দ্রুত সেটআপ করাঃ

    এই বিভাগটি দ্রুত আপনাকে কাজ শুরু করার উপযোগী করে তোলার জন্য ডিজাইন করা হয়েছে। যদি আপনার বিস্তারিত তথ্যের প্রয়োজন হয়, তবে সরাসরি Device and system configuration অংশে চলে যেতে পারেন। এবং Troubleshooting অংশটিও দেখতে পারেন। এটি আপনাকে সম্ভাব্য সমস্যা সমাধানে সহায়তা করবে।

    1. নিশ্চিত হয়ে নিন যে আপনার ফায়ারফক্স ডেস্কটপ ২৬ বা তার পরবর্তী সংস্করণ ইন্সটল করা আছে।
    2. অ্যাপ ম্যানেজার চালু করুন (URL বারে about:app-manager লিখে এন্টার চাপতে হবে)
    3. যদি আপনার বাস্তব ডিভাইস না থাকেঃ
      1. ফায়ারফক্স ওস সিমুলেটর ইন্সটল করুন।
      2. অ্যাপ ম্যানেজারের নিচের টুলবারে Start Simulator লেখাটির উপর ক্লিক করুন। তারপর আপনার ইন্সটল করা সিমুলেটরের নামের উপর ক্লিক করুন।
    4. যদি আপনার একটি বাস্তব ডিভাইস থাকেঃ
      1. নিশ্চিত করুন আপনার ডিভাইসে ফায়ারফক্স ওএস ১.২ বা তার পরবর্তী সংস্করণ ইন্সটল করা আছে।
      2. উইন্ডোজ কম্পিউটারে আপনার ফোন নির্মাতার দেয়া ড্রাইভার গুলো ইন্সটল করে নিন।
      3. আপনার ডিভাইসের সেটিংসে গিয়ে স্ক্রিনলক নিষ্ক্রিয় করে নিন (Settings > Screen Lock) এবং রিমোট ডিবাগিং চালু করে নিন (Settings > Device information > More information > Developer)
      4. ফায়ারফক্স ডেস্কটপে ADB হেল্পার অ্যাড-অন ইন্সটল করে নিন।
      5. ডিভাইসকে পিসির সাথে একটি USB কেবলের মাধ্যমে যুক্ত করুন।
      6. অ্যাপ ম্যানেজারের নিচের টুলবারে আপনার ডিভাইসের নাম দেখতে পাবেন। ক্লিক করুন।
    5. বটম বারটি "Connected to: xxx" দেখাবে।
    6. Apps প্যানেলে ক্লিক করুন এবং একটি অ্যাপ (প্যাকেজ অথবা হোস্টেড) অ্যাড করুন।
    7. Refresh বাটন আপনার অ্যাপ কে যাচাই করবে এবং সিমুলেটর/ডিভাইসে ইন্সটল করবে।
    8. Debug বাটন চলতি অ্যাপটির সাথে ডেভেলপার টুলসকে যুক্ত করবে।
    9. আপনার সমস্যা হলে Troubleshooting বিভাগটি দেখতে পারেন।

    ডিভাইস এবং সিস্টেম কনফিগারেশন

    অ্যাপ ম্যানেজার ব্যবহারের সময় সর্বপ্রথম যে কাজটি করতে হবে, তা হলঃ আপনার সিস্টেম এবং ফোন সঠিকভাবে সেটআপ করা হয়েছে। এই অংশটিতে সকল আবশ্যক ধাপের বর্ণনা করা হয়েছে।

    ফায়ারফক্স ১.২+ আবশ্যক

    নিশ্চিত হয়ে নিন, আপনার ডিভাইসে ফায়ারফক্স ওএস ১.২/বুট-টু-গেকো ১.২ বা তার পরবর্তী সংস্করণ রয়েছে। আপনি কোন সংস্করণ ব্যবহার করছেন জানতে Settings > Device Information > Software এ যান।

    যদি আপনার উন্নত কোন সংস্করণ ইন্সটল করা না থাকে, তাহলে ফোনের উপর নির্ভর করে, হয় আপনাকে ফায়ারফক্স ১.২ এর একটি সহজলভ্য নাইটলি বিল্ড ইন্সটল করতে হবে; অথবা সোর্স কোড থেকে নিজে বিল্ড ও কনফিগার করে নিতে হবে।

    বর্তমানে যেসব বিল্ড পাওয়া যাচ্ছেঃ

    আপনার নিজস্ব ফায়ারফক্স ওস ১.২ ডিস্ট্রিবিউশন তৈরি করার জন্য ফায়ারফক্স ওএস বিল্ড এবং ইন্সটল এর নির্দেশনা গুলো পড়তে পারেন। তবে শুরুতে ফায়ারফক্স ওএস বিল্ডের পূর্বশর্ত সমূহ দেখে নেবেন।

    রিমোট ডিবাগিং

    এরপর, আপনাকে ফায়ারফক্স ওএস এ রিমোট ডিবাগিং চালু করতে হবে। এটি করার জন্য Settings > Device information > More information > Developer এ যান এবং Remote Debugging চেক বক্সে টিক দিন।

    ADB বা ADB হেল্পার

    ডিভাইস-কম্পিউটার সংযোগ এবং যোগাযোগের জন্য এই প্রক্রিয়াটি অ্যান্ড্রয়েড ডিবাগ ব্রিজ (এডিবি) ব্যবহার করে। এডিবি চালু করার জন্য দুইটি উপায় রয়েছেঃ

    • ফায়ারফক্সকে এডিবি নিয়ন্ত্রন করতে দেয়া (প্রস্তাবিত)। Iএডিবি হেল্পার অ্যাড-অন ইন্সটল করুন, এটা প্রক্রিয়াটিকে সহজ করে। এটা ইন্সটল করা থাকলে এডিবি ইন্সটল করার কোন প্রয়োজন নেই এবং adb forward কমান্ডও টাইপ করার প্রয়োজন নেই। অ্যাড-অন টি সব কিছু নিয়ন্ত্রন করবে।

      ADB হেল্পার অ্যাড-অন ডাউনলোড
    • ম্যানুয়ালি এডিবি ব্যবহার করা। এটা আপনার কম্পিউটারে ইন্সটল করতে হবে। ডাউনলোড করে এডিবি ইন্সটল এ যেভাবে বর্ণনা করা হয়েছে, সেভাবে adb ইন্সটল করে নিন। আপনার টার্মিনালে নিচের কমান্ড লিখে পোর্ট ফরওয়ার্ডিং চালু করে নিতে হবেঃ
      adb forward tcp:6000 localfilesystem:/data/local/debugger-socket
      উল্লেখ্য যে প্রতিবার আপনি আপনার ফোন রিস্টার্ট করবেন বা প্লাগ খুলে আবার লাগাবেন, ততবার আপনাকে উপরের কাজটি করতে হবে।

    দ্রষ্টব্যঃ যদি আপনি এডিবি হেল্পার ইন্সটল করে থাকেন, তবে উপরের কমান্ড রান করতে হবেনা।

    অ্যাপ ম্যানেজারে ডিভাইস যুক্ত করা

    সকল কনফিগারেশনের কাজ শেষ হওয়ার পর, এখন সময় হয়েছে ডিভাইসকে কম্পিউটারের সাথে যুক্ত করার এবং অ্যাপ ম্যানেজার চালু করার।

    1. ইউএসবি কেবলের মাধ্যমে ডিভাইসকে কম্পিউটারের সাথে যুক্ত করুন।
    2. স্ক্রিন লক ডিজ্যাবল করে নিন। এজন্য Settings থেকে Screen Lock নির্বাচন করুন এবং Lock Screen নামের বক্স থেকে টিক চিহ্নটি তুলে দিন। এটা জরুরি একটি কাজ; কারন যখন স্ক্রিন লক হয়ে যায়, তখন ফোনের সাথে কম্পিউটারের সংযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়। আর সংযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে গেলে ডিবাগিং করা যাবেনা।
    3. অ্যাপ ম্যানেজার চালু করুন — ফায়ারফক্স ডেস্কটপে Tools মেনু থেকে Web Developer > App Manager অপশন নির্বাচন করুন। অথবা ইউআরএল বারে about:app-manager টাইপ করুন।
    4. অ্যাপ ম্যানেজার ট্যাবের নিচে আপনি একটি "কানেকশন স্ট্যাটাস বার" দেখতে পাবেন (নিচের স্ক্রিনশট দেখুন)। "Connect to localhost:6000" বাটনে ক্লিক করে আপনি আপনার ডিভাইস যুক্ত করতে পারবেন।
    5. যদি এটা সফল ভাবে কাজ করে, তাহলে আপনার ডিভাসে একটি প্রম্পট আসবেঃ "An incoming request to permit remote debugging connection was detected. Allow connection?"। OK বাটনে স্পর্শ করুন (কিছু কিছু ক্ষেত্রে প্রম্পট টি দেখার জন্য আপনাকে পাওয়ার বাটন চাপা লাগতে পারে)। কানেকশন স্ট্যাটাস বার আপডেট হবে এবং "Connected to B2G" প্রদর্শন করবে, আর সাথে একটি ডিসকানেক্ট বাটন থাকবে, যাতে আপনি সংযোগ বিচ্ছিন্ন করতে চাইলে করতে পারেন।

    খেয়াল করুনঃ কানেকশন স্ট্যাটাস বারে থাকা অন্যান্য বাটনগুলো আপনাকে অ্যাপ ম্যানেজারের সাথে সিমুলেটরকে সংযুক্ত করার সুবিধা দেয়। এগুলো আমরা পরবর্তীতে নিচে আলোচনা করবো, এবং যে পোর্টে আমাদের ফোনের সাথে যোগাযোগের কাজটি হয়, তা পরিবর্তন করা শিখবো। যদি আপনি পোর্ট পরিবর্তন করেন, তাহলে উক্ত পোর্টের জন্য পোর্ট ফরওয়ার্ডিংও চালু করতে হবে। পোর্ট ফরওয়ার্ডিং সংক্রান্ত তথ্য উপরের Enable port forwarding অংশে পাবেন।

    একটি ফায়ারফক্স ওএস সিমুলেটর অ্যাড-অন ব্যবহার করা

    অ্যাপ ম্যানেজারের সাথে ব্যবহার করার জন্য যদি আপনার কাছে বাস্তব কোন ডিভাইস না থাকে, তারপরও আপনি একটি ফায়ারফক্স ওএস সিমুলেটর ব্যবহার করে এটির স্বাদ গ্রহন করতে পারেন। শুরু করার জন্য, প্রথমে নিচের বাটনটি (একাধিক সংস্করণ পাওয়া যাবে; সর্বোচ্চ সুবিধার জন্য সবগুলো ইন্সটল করতে পারেন) ক্লিক করে সিমুলেটর টি ডাউনলোড করে ইন্সটল করে নিনঃ

    সিমুলেটর ইন্সটল

    একবার সিমুলেটর(গুলো) ইন্সটল করা হয়ে গেলে, আপনাকে অ্যাপ ম্যানেজার ট্যাবের নিচের দিকে থাকা কানেকশন স্ট্যাটাস বারে যেতে হবে, এবং "Start simulator" বাটনে ক্লিক করতে হবে। কমপক্ষে তিনটি বাটন দেখা যাবেঃ

    • "Firefox OS 1.3", "Firefox OS 1.2" ... ইত্যাদি। (বা এরকম অন্যকিছু): একেবারে বামের দিকে থাকা বাটনগুলোতে সিমুলেটরের সংস্করণ গুলোর নাম থাকবে। সিমুলেটর চালু করার জন্য যেকোনো একটি বাটনে ক্লিক করুন।
    • "Add": মাঝখানের বাটন এই নিবন্ধের সিমুলেটর ইন্সটল সম্পর্কিত লিঙ্ক সমূহে নিয়ে আসবে। এতে করে আপনি আরও সিমুলেটর (ফায়ারফক্স ওএস ১.৩, ফায়ারফক্স ওএস ১.৪ ইত্যাদি)  ইন্সটল করতে পারবেন।
    • "Cancel": ডান পাশের বাটনটি সংযোগ বাতিল করে।

    খেয়াল করুনঃ যেহেতু ফায়ারফক্স ওএস ১.৫ সংস্করণের নাম বদলে ২.০ হয়ে গেছে, তাই ফায়ারফক্স ওএস ১.৫ সিমুলেটর সরিয়ে দেওয়া হয়েছে। কিন্তু আপনি যদি আগেভাগেই ১.৫ সিমুলেটর ইন্সটল করে রাখেন, তাহলে এটি স্বয়ংক্রিয়ভাবেই ২.০ তে আপডেট হয়ে যাবে না। তাই আপনাকে ১.৫ আনইন্সটল করে ২.০ ইন্সটল করতে হবে। তাহলে এর পর থেকে ২.০ স্বয়ংক্রিয়ভাবেই আপডেট হবে।

    খেয়াল করুনঃ ফায়ারফক্স ওএস ১.২ সিমুলেটর সরিয়ে ফেলা হয়েছে, কারণ কোন ডিভাইসেরই ফায়ারফক্স ওএস এর এই সংস্করণে রিলিজ হওয়ার কোন সম্ভাবনা নাই। তাই এই সংস্করণের পেছনে সময় ব্যয় না করাই ভাল।

    অ্যাপ ম্যানেজারে কাস্টম বিল্ড চালানো

    খেয়াল করুন যে আপনই সিমুলেটরের সাহায্যে অ্যাপ ম্যানেজারে নিজের কাস্টম B2G ডেস্কটপ এবং Gaia/Gecko বিল্ড চালাতে পারবেন। নির্দেশনার জন্য কাস্টম Firefox OS/Gaia বিল্ড অ্যাপ ম্যানেজারে চালানো দেখুন।

    অ্যাপস প্যানেল

    এখন যেহেতু সবকিছু ঠিকঠাক কাজ করছে, এখন চলুন অ্যাপ ম্যানেজারের মধ্যে অ্যাপস প্যানেল থেকে শুরু করে যেসব সুবিধা রয়েছে, তা দেখে নেয়া যাক। এখান থেকে আপনি বর্তমান অ্যাপকে আপনার ডিভাইসে পাঠিয়ে পরীক্ষা করে দেখতে পারবেনঃ

    • একটি লোকাল অ্যাপ ইন্সটল করার জন্য "Add Packaged App" লেবেলের পাশে থাকা যোগ চিহ্নটিতে ক্লিক করুন, এবং এরফলে আসা ফাইল ব্রাউজারের মাধ্যমে আপনার অ্যাপ যে ফোল্ডারের মধ্যে আছে, সেটি নির্বাচন করুন।
    • বাইরে হোস্ট করা একটি অ্যাপ ইন্সটল করার জন্য "Add Hosted App" বক্সের ভেতরে থাকা টেক্সট ফিল্ডে অ্যাপ এর ম্যানিফেস্ট ফাইলের সঠিক লিঙ্ক দিন এবং যোগ চিহ্ন ওয়ালা বাটনটি ক্লিক করুন।

    আপনার অ্যাপ সম্পর্কিত তথ্য উইন্ডোর ডান পাশে - নিচের ছবির মত দেখাবেঃ

    ম্যানিফেস্ট এডিটর

    ফায়ারফক্স ২৮ এর পর থেকে অ্যাপস প্যানেলের মধ্যে একটি অ্যাপ ম্যানিফেস্ট এডিটর যোগ করা হয়েছেঃ

    ডিবাগিং

    "Update" এ ক্লিক করুন। এটা অ্যাপকে ডিভাইসে আপডেট (ইন্সটল) করবে। "debug" এ ক্লিক করলে অ্যাপ এর সাথে একটি টুলবক্স সংযুক্ত হবে। ফলে আপনি এর কোড সরাসরি পরীক্ষা করতে পারবেনঃ

    টুলবক্সের মধ্যে খেলা করতে আপনার ভালোই লাগবে — DOM, CSS ইত্যাদি পরিবর্তনের চেষ্টা করুন। আপনি দেখতে পাবেন যে আপনার করা পরিবর্তনগুলো ডিভাইসে সাথে সাথেই দেখা যাচ্ছে। আর এই তাৎক্ষনিক পরিবর্তন গুলো ইন্সটল হওয়া অ্যাপের কোডে সংরক্ষন করা হবে। এরপরে যখনি আপনি ডিভাইসে উক্ত অ্যাপটি চালু করবেন, তখনি আপনার করা সর্বশেষ পরিবর্তন সহ দেখতে পাবেন।

    ফায়ারফক্স ২৮ এর আগে টুল সমূহ আলাদা উইন্ডোতে চালু হত। ফায়ারফক্স ২৮ এরপর থেকে টুলসমূহ অ্যাপ ম্যানেজারের মধ্যে একটি আলাদা ট্যাবে চালু হয়। এই ট্যাবটি অ্যাপস অ্যান্ড ডিভাইস ট্যাবের পাশে থাকে। ট্যাবটিকে আপনার অ্যাপের আইকন দেয়া হয়, যাতে আপনি সহজে খুঁজে পেতে পারেনঃ

    ত্রুটিসমূহ

    যদি সফলভাবে একটি অ্যাপ যুক্ত করা না হয় - যেমন URL টি যদি ভুল হয়ে থাকে, অথবা আপনি যদি একটি প্যাকেজড অ্যাপ ফোল্ডার নির্বাচন করে থাকেন, তাহলে উক্ত অ্যাপের পেজে একটি এন্ট্রি যুক্ত করা হবে; কিন্তু তার মধ্যে ভুলের তথ্য থাকবে।

    এই ভিউ থেকে আপনি একটি অ্যাপ অপসারণও করতে পারবেন। অ্যাপ অপসারণের জন্য উইন্ডোর বাম দিকে অ্যাপের নাম/বর্ণনা এর উপর মাউস পয়েন্টার নিয়ে "X" বাটনের উপর ক্লিক করতে হবে। কিন্তু এটা করলে ডিভাইস থেকে অ্যাপ অপসারণ হবেনা। ডিভাইস থেকে অ্যাপ অপসারণের জন্য আপনাকে ডিভাইস ব্যবহার করে ম্যানুয়ালি অপসারণ করতে হবে।

    ডিভাইস প্যানেল

    ডিভাইস ট্যাব সংযুক্ত ডিভাইসের তথ্য প্রদর্শন করে। " Installed Apps " উইন্ডো থেকে, ডিভাইসে থাকা অ্যাপ সমূহ চালু করা ও নিরীক্ষন করা যাবে।

    দ্রষ্টব্যঃ প্রত্যয়িত (সার্টিফায়েড) অ্যাপস ডিফল্ট ভাবে তালিকাভুক্ত থাকেনা। প্রত্যয়িত অ্যাপস কিভাবে ডিবাগ করবেন, তা দেখুন

    "Permissions" উইন্ডো বর্তমান ডিভাইসে থাকা বিভিন্ন ওয়েব এপিআই এর জন্য যেসব সুবিধা দেয়া প্রয়োজন, তা প্রদর্শন করেঃ

    সবশেষে, "Screenshot" বাটন ক্লিক করে বর্তমান ডিভাইসের ডিসপ্লের স্ক্রিনশট নিতে পারেন। স্ক্রিনশট নেয়া হয়ে গেলে তা ফায়ারফক্সের নতুন ট্যাবে আসবে, এবং সেখান থেকে আপনি চাইলে সেটি সংরক্ষণ বা বাতিল করে দিতে পারেন।

    প্রত্যয়িত (সার্টিফায়েড) অ্যাপ ডিবাগ করা

    বর্তমানে যেসব ডিভাইসে ফায়ারফক্স ওএস ১.২ এর ডেভেলপমেন্ট বিল্ড চলছে, শুধুমাত্র সেগুলোই প্রত্যয়িত অ্যাপ ডিবাগ করতে সমর্থ। যদি আপনার একটি ডেভেলপমেন্ট বিল্ড থাকে, তাহলে আপনার প্রোফাইলে devtools.debugger.forbid-certified-apps প্রেফারেন্স false এ পরিবর্তনের মাধ্যমে আপনি প্রত্যয়িত অ্যাপ ডিবাগ সুবিধা চালু করে নিতে পারেন। এটা করার জন্য নিচের ধাপগুলো অনুসরণ করুনঃ

    1. আপনার ডিভাইসের ফাইল সিস্টেমে শেলের মাধ্যমে প্রবেশের জন্য কম্পিউটারের টার্মিনাল/কনসোলে নিচের কমান্ড গুলো লিখুনঃ

      adb shell

      আপনার প্রম্পট পরিবর্তন হয়ে root@android প্রদর্শন করবে।

    2. এরপর, নিচের কমান্ড দিয়ে B2G বন্ধ করুনঃ

      stop b2g
    3. নিচের ডিরেক্টরিতে প্রবেশ করুনঃ

      cd /data/b2g/mozilla/*.default/
    4. এখানে, prefs.js হালনাগাদ করার জন্য নিম্নোক্ত কমান্ড লিখুনঃ

      echo 'user_pref("devtools.debugger.forbid-certified-apps", false);' >> prefs.js
    5. হালনাগাদ শেষে নিচের কমান্ডের মাধ্যমে B2G পুনরায় চালু করুনঃ

      start b2g
    6. exit কমান্ড ব্যবহার করে অ্যান্ড্রয়েড ফাইল সিস্টেম থেকে বের হয়ে আসুন; এরপর আপনি আপনার সাধারন টার্মিনাল প্রম্পটে চলে আসবেন।

    7. এরপর, পুনরায় অ্যাপ ম্যানেজার কানেক্ট করলে নিরীক্ষণের জন্য সনদপ্রাপ্ত অ্যাপ সমূহ দেখতে পাবেন।

    লক্ষ্য করুনঃ যদি আপনি এই সুবিধাটি আপনার গায়া বিল্ডে যুক্ত করতে চান, তাহলে আপনি এই কমান্ডটি চালাতে পারেনঃ make DEVICE_DEBUG=1 reset-gaia.

    সমস্যা সমাধান

    যদি ডিভাইস খুঁজে না পায়ঃ

    অ্যাপ ম্যানেজারের সাথে আপনার ডিভাইস কানেক্ট করতে পারছেন না বা সিমুলেটর চালু করতে পারছেন না ? আমাদের জানান বা বাগ ফাইল করুন

    ডকুমেন্ট ট্যাগ এবং অবদানকারী

    Contributors to this page: mobarak.ali, tuxboy, badsha_eee, jsx, shafiul
    সর্বশেষ হালনাগাদ করেছেন: jsx,
    সাইডবার লুকানো